নিউজপোল ডেস্ক:‌ নরেন্দ্র মোদী ভোটে জিতেছেন ভাল কথা। কিন্তু মোদী অনুরাগীরা বিজয়োল্লাসের নামে তাঁর মেয়েকে সোশ্যাল সাইটে অশ্রাব্য ভাষায় ধর্ষণের হুমকি। এই অনুরাগীদের কীভাবে সামলাবেন, জানতে মোদীকে ট্যাগ করে টুইট করলেন পরিচালক অনুরাগ কাশ্যপ। এ বিষয়ে প্রধানমন্ত্রীকে কেন টানা হচ্ছে, তা নিয়ে আবার মাঠে নামলেন আর এক পরিচালক অশোক পণ্ডিত।
অনুরাগ কাশ্যপের মেয়ের ইনস্টাগ্রামে চৌকিদার রামসাঙ্ঘি নামে এক জন লিখেছে, ‘‌জয়শ্রী রাম। নিজের বাপকে বল .‌.‌.‌.‌.‌ বন্ধ করতে। নয়তো তোকে এমন.‌.‌.‌.‌.‌.‌, যা আজ পর্যন্ত কেউ দেয়নি’‌। যে ভাষায় পোস্টটি করা হয়েছে, তা লেখার যোগ্য নয়। এই ইনস্টাগ্রাম পোস্টের স্ক্রিনশট তুলে মোদীকে ট্যাগ করে অনুরাগ কাশ্যপ একটি টুইট করেন। লেখেন, ‘‌প্রিয় নরেন্দ্র মোদী, আপনার জয়ের জন্য অভিনন্দন। সবাইকে নিয়ে চলার যে বার্তা দিয়েছেন, তার জন্য ধন্যবাদ। কিন্তু বলতে পারেন, আপনার এই অনুরাগীদের কী করব, যারা আপনার জয় উদযাপন করছে আমার মেয়েকে এ ধরনের হুমকি দিয়ে। যেহেতু আমি আপনার অনুরাগী নই’‌।
এই টুইট দেখে মোদী–অনুরাগী অশোক পণ্ডিত আবার লেখেন, ‘‌এই টুইটার হ্যান্ডল আসলে ফটোশপ। কারণ। টুইটারে এই নামে কোনও অ্যাকাউন্ট নেই। সারা দুনিয়া এখন বিজয়োল্লাসে মেতেছে। এসময় কোনও শহুরে নকশাল এসব করেছে প্রধানমন্ত্রীকে হেনস্থা করার জন্য’‌। পাশাপাশি অশোক পণ্ডিত পরামর্শ দেন, টুইটারে মোদী ট্যাগ না করে বরং পুলিশের দ্বারস্থ হওয়া উচিত। ঠোঁটকাটা অনুরাগ চুপ থাকেননি। পণ্ডিতকে মনে করিয়ে দিয়েছেন, পোস্টটি তাঁর মেয়েকে ইনস্টাগ্রামে করা হয়েছে। টুইটারে এ রকম প্রোফাইল খুঁজতে যাওয়া অর্থহীন। গালিগালাজও করেন। তাতে বেশ ক্ষুব্ধ এই মোদী–ভক্ত পরিচালক। অনুরাগের করা মেসেজের স্ক্রিনশট সোশ্যাল সাইটে তুলে ধরেন।

অনুরাগের মোদী সরকার–বিরোধিতা কারও জানতে বাকি নেই। এমনকী তিনি নিজেও সেকথা স্বীকার করেন। সরকারের বিভিন্ন নীতির সমালোচনা করেছেন। ২০১৯ লোকসভা নির্বাচনে বিপুল জয়ের পর একের পর এক সেলেব মোদীকে অভিনন্দন জানালেও অনুরাগ সে পথ মাড়াননি।