নিউজপোল ডেস্ক: বাড়িতে পোষ্য রাখার রেওয়াজ অনেক হাজার বছর থেকেই রয়েছে। তবে আগে চোর ডাকাতের হাত থেকে রেহাই পেতেই বাড়িতে কুকুর পোষার প্রচলন ছিল। বর্তমান প্রজন্মের অধিকাংশেরই নিত্যসঙ্গী পোষ্য। কিন্তু পোষ্যের প্রতি আগ্রহ যতই বাড়ুক না কেন, আপনি পোষ্য রাখবেন কিনা, তা নির্ধারণ করবে আপনার জিন। এমনই তথ্য জানাল একদল বিজ্ঞানী।
সুইডেনের উপসালা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক টভ ফলের নেতৃত্বাধীন একটি গবেষকদল প্রায় ৩৫ হাজার যমজের ওপর চালিয়েছিল এই গবেষণা। যাঁরা পোষ্য ভালবাসেন। জানিয়েছেন, ‘আমরা রীতিমতো অবাক হয়েছি এই তথ্যে। বাড়িতে পোষ্য রাখার ক্ষেত্রে জিনের তাৎপর্যপূর্ণ প্রভাব রয়েছে।’ তিনি আরও বলেন, ‘কিছু মানুষ রয়েছেন, যাঁরা তাঁদের পোষ্যের প্রতি অত্যধিক যত্নশীল। এর ওপর নির্ভর করে আপনি পোষ্য রাখবেন কিনা।’

সুইডেনের বিজ্ঞানীদের গবেষণায় প্রাপ্ত এই তথ্য এর আগে ইউনিভার্সিটি অফ ব্রিস্টল-এর জন ব্র্যাডশ একটি প্রতিবেদনে বলেছিলেন। তাঁর গবেষণা অনুসারে, যে কোনও প্রাণী বা পোষ্যের প্রতি আপনি যত্নশীল হবেন কিনা, সেই বিষয় নির্ভর করবে আপনার জিনের ওপর। সম্প্রতি টভ ফলের নেতৃত্বাধীন গবেষণা সেই তথ্যকেই আরও স্পষ্ট করল।