বিধানসভা নির্বাচনের প্রাক্কালে কলকাতার প্রাক্তন মেয়র শোভন চট্টোপাধ্যায় এবং বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায় বীরভূমের রামপুরহাটে আসেন রোড শো করতে। আর এই রোড শো থেকেই শোভন চট্টোপাধ্যায় হুংকার দিয়ে দাবি করলেন, ‘নবান্ন খালি করতে হবে, শুধু সময়ের অপেক্ষা।’ পাশাপাশি তিনি অনুব্রত মণ্ডলকে আক্রমণ করতে গিয়ে বলেন, ‘কেষ্টদার মুখের ভাষা নেড়ি কুকুরের ল্যাজের মত’।

মঙ্গলবার শোভন চট্টোপাধ্যায় ও বৈশাখী বন্দ্যোপাধ্যায় এই রোড শো হয় রামপুরহাটের শ্রীফলা থেকে পাঁচমাথা মোড় পর্যন্ত। আর সেই রোড শো’র গাড়িতে চেপে শোভন চ্যাটার্জি বলেন, “হাজারে হাজারে মানুষ রাস্তায়। রাস্তার দু’পাশে মানুষ দাঁড়িয়ে ভারতীয় জনতা পার্টিকে অভিবাদন জানাচ্ছেন। আর এখান থেকেই লেখা হয়ে যাচ্ছে তৃণমূলের ভবিষ্যৎ, চলে যেতে হবে। নবান্ন খালি করে দিতে হবে। বাংলার সরকার থেকে তৃণমূলের চলে যাওয়া শুধু সময়ের অপেক্ষা।”

বাংলা এবং বীরভূমে কত আসন আশা করতে পারে বিজেপি? এই প্রশ্ন উঠলে শোভন চট্টোপাধ্যায় জানান, “আমরা ১০০ শতাংশ আশাবাদী বাংলায় দু’শোর বেশি আসন নিয়ে সরকার গড়বে ভারতীয় জনতা পার্টি। বীরভূমেও সম্ভবত এগারোয় ১১টি আসনই পাবে ভারতীয় জনতা পার্টি। কারণ কেষ্ট দার যা মুখের ভাষা সেই ভাষাকে জবাব দেওয়ার সময় এসেছে।”

এর পরে তিনি আবার অনুব্রত মণ্ডলের ভাষা নিয়ে কটাক্ষ করে বলেন, “কেষ্ট দার মুখের ভাষা নেড়ি কুকুরের ল্যাজের মতো। একটু সোজা করে দেবেন আবার বেঁকে যাবে। নিজে কি বলতে হয় মাথায় যখন অক্সিজেন ফুরিয়ে যায় তখন চলে যায়। আর কেষ্ট মণ্ডলই যথেষ্ট বীরভূমে তৃণমূলকে কবর দেওয়ার জন্য।”