পরকীয়া জানাজানি হতেই আত্মঘাতী (suicide) যুগল। জোড়া আত্মহত্যার ঘটনায় রবিবার সকালে দক্ষিণ ২৪ পরগণার উস্তি থানার একতারা এলাকায় উত্তেজনা ছড়িয়েছে।

স্থানীয় সূত্রে খবর, এলাকার বাসনা পুরকাইত এক বিবাহিত মহিলার সঙ্গে প্রেম করতেন মানস সাউ। এই এলাকায় পিসির বাড়িতে থাকতেন তিনি। গোপনে গোপনে প্রেম চলছিল এই যুগলের। কিন্তু হঠাত্‍ই জানাজানি হয়ে যাওয়ায়, আর কোনও পথ না পেয়ে আত্মহত্যার পথই বেছে নেন দুজনে।

আরও জানা যায়, একতারা গ্রামের জ্বালানি পাড়ার বাসিন্দা পিনাকী মণ্ডলের সঙ্গে দশ বছর আগে বিয়ে হয়েছিল বাসনার। পিনাকীর দ্বিতীয় পক্ষের স্ত্রী ছিলেন বাসনা। স্বামী ও সত্‍ ছেলে বাইরেই থাকতেন। তবে তার গোপনে চলা প্রেম হঠাত্‍ই ফাঁস হয়ে যায় সত্‍ ছেলের কাছে। শনিবার রাতে সত্‍ ছেলে সুদীপ পুরকাইত হাতেনাতে ধরে ফেলেন বাসনাদেবীকে। আর সেই ভয়েই দুজনে রাতে যে যার নিজের বাড়িতে আত্মহত্যা করেন মানস ও বাসনা।

 

আরো পড়ুন:  Extramarital Affair: পরকীয়ার মর্মান্তিক পরিণতি, ছেলেমেয়েদের সঙ্গে নিয়েই গায়ে আগুন দিলেন স্ত্রী