পরপর দুটো অলিম্পিকে ব্যক্তিগত ইভেন্টে ব্রোঞ্জ ও রুপো জিতেছিলেন কুস্তিগীর সুশীল কুমার। দেশের সর্বকালের অন্যতম সেরা এই ক্রীড়াবিদই এখন পলাতক খুনের অভিযোগে।

  • সুশীল কুমারের বিরুদ্ধে লুক আউট নোটিশ জারি করল দিল্লি পুলিশ। ছত্রসল স্টেডিয়ামের পার্কিংয়ে সাগর রানা নামে ২৩ বছরের এক কুস্তিগীর মারামারির ঘটনায় মারা যান। এরপর দায়ের করা হয় খুনের অভিযোগ। ঘটনায় সুশীল জড়িত। এমনটাই অভিযোগ মৃতের পরিবারের। জিজ্ঞাসাবাদের জন্য সুশীলকে খুঁজলেও তাঁর খোঁজ পায়নি পুলিশ। এর জেরেই লুক আউট নোটিশ জারি করা হল। উত্তর–দিল্লির অতিরিক্ত ডিসিপি  গুরিকবাল সিং সিধু বলেন, ‘আমরা আহত দুইজন ও নিহতের পরিবারের সঙ্গে কথা বলে তাঁদের অভিযোগের ভিত্তিতে সুশীল কুমারের খোঁজে তল্লাশি চালাচ্ছি।’
  • গত মঙ্গলবার রাতে ছত্রসল স্টেডিয়ামের বাইরে পার্কিংয়ে দুই দলের মধ্যে ঝামেলার জেরে প্রচন্ড মার খেয়ে মারা যান ২৩ বছরের সাগর রানা। যিনি ৯৭ কেজি বিভাগের গ্রেকো রোমানের জাতীয় জুনিয়র চ্যাম্পিয়ন। তখন থেকেই উধাও হন সুশীল। প্রথমে সুশীলকে অভিযুক্ত করা হলেও তাঁর বিরুদ্ধে তেমন কোনও প্রমাণ ছিল না। কিন্তু শনিবার দিল্লি পুলিশের হাতে সিসিটিভি আর একটি মোবাইলের রেকর্ডিংয়ের যে ফুটেজ এসেছে, তাতে স্পষ্ট দেখা গেছে মারামারির মধ্যে ছিলেন সুশীল। সাগরের যে দুই বন্ধু সোনু ও অমিত হাসপাতালে ভর্তি, তাঁরাও যে বয়ান দিয়েছেন, তাতে স্পষ্ট গন্ডগোলের মূলে সুশীলই। পুলিশ ইতিমধ্যেই সুশীলের দুই বন্ধু ভগতু ও রবিন্দরকে গ্রেপ্তার করেছে। প্রিন্স দালাল বলে আরও একজনকে পরে গ্রেপ্তার করা হয়।

জানা গেছে, মডেল টাউনে সুশীলের একটি ফ্ল্যাটে ভাড়া থাকতেন সাগর।

  • কিন্তু তিনি ভাড়া না দেওয়ায় সুশীল ফ্ল্যাট ছাড়তে বলেন। যা নিয়ে সুশীলের সঙ্গে সাগরের মাঝেমধ্যেই ঝগড়া হত। কিছুদিন আগে সাগর ফ্ল্যাট ছাড়লেও ভাড়া দেননি। স্টেডিয়ামের কাছেই একটি ফ্ল্যাটে বন্ধু সোনুর সঙ্গে থাকতে শুরু করে সাগর। অনেকেই বলছেন, এই নতুন জায়গার আসার পর সুশীলের নামে কুৎসা করতেন সাগর। এতেই চটে যান সুশীল। গত মঙ্গলবার সাগরকে তাঁর ফ্ল্যাট থেকে ডেকে আনেন প্রিন্স, রবিন্দররা। এরপর সাগরকে হকি স্টিক, বেসবলের ব্যাট দিয়ে পেটানো হয়। সাগরের বন্ধুরা এলে দু’‌পক্ষের সংঘর্ষ হয়। এরমধ্যে সাগর মাটিতে লুটিয়ে পড়লে সুশীলরা পালিয়ে যান। পরে সুশীলদের গাড়ির সন্ধান পায় পুলিশ। যার মধ্যে বন্দুক, কার্তুজ মিলেছে। পুলিশ আবার সুশীলের বিরুদ্ধে খুনের মামলার পাশাপাশি অপহরণ ও বেআইনি আগ্নেয়াস্ত্র রাখার অভিযোগ দায়ের করেছে। এখনও পলাতক সুশীল।