নিউজপোল ডেস্ক: বর্তমান সময়ের সবচেয়ে জনপ্রিয় মাধ্যম ফেসবুক। সোশ্যাল মিডিয়ার ‘জায়েন্ট কিলার’ বলা হয় ফেসবুককে। ব্যবহারকারীদের কথা ভেবে তাই তারা নতুন নতুন ফিচার আনছে এই তাদের অ্যাপ্লিকেশন ও ওয়েবসাইটে। সম্প্রতি ব্যবহারকারীদের নিরাপত্তা ছাড়াও ভুয়ো খবর ছড়ানো রুখতে কড়া নজরদারি চালাচ্ছে তারা। এই মাপকাঠিতে নির্বাচিত স্প্যাম পোস্টগুলিকে টাইমলাইন থেকে সরিয়ে দেবে ফেসবুক। বিশেষত যাঁরা প্রতিদিন অসংখ্য ‘পাবলিক পোস্ট’ শেয়ার করেন, তাঁদের ক্ষেত্রে এই সমস্যা বেশি হতে পারে বলেই সংবাদসূত্রে প্রকাশ।
কম সময়ের ব্যবধানে একই লিঙ্ক ঘন ঘন শেয়ার করলে ফেসবুকের চোখে তা স্প্যাম হিসেবেই গণ্য হতো। কিন্তু নিউজফিডে এমনও অনেক লিঙ্ক বা পোস্ট দেখা যায়, যা অনভিপ্রেত। অনেক ফেসবুক ব্যবহারকারীই বিভিন্ন পাবলিক পোস্ট তাঁদের নিজস্ব টাইমলাইনে দেদার শেয়ার করেন। ফলে ওই ব্যবহারকারীর বন্ধুতালিকায় যাঁরা রয়েছেন, তাঁরা না চাইলেও তাঁদের নিউজফিডে সেই পোস্টগুলো দেখায়। এই ধরনের পোস্টগুলি যদি সংবেদনশীল বা ভুল তথ্যনির্ভর হয়,

তাহলে এগুলিকে স্প্যাম হিসেবেই গণ্য করবে ফেসবুকে। তবে এদিক থেকে ফেসবুক আরও জানিয়েছে, স্ট্যাটাস আপডেট, ছবি, ভিডিও কিংবা চেক ইন-এর ক্ষেত্রে এই নিয়ম লাগু হবে না। মূলত লিঙ্কের ক্ষেত্রেই প্রযোজ্য হবে এই নতুন নিয়ম। সংস্থার তরফে জানানো হয়েছে, ‘আমাদের এই উদ্যোগ ফেসবুক ব্যবহারকারীর নিউজফিডকে পরিমিত ও তথ্যনির্ভর করে তোলার জন্য। সংবেদনশীল, ভুল তথ্যের পরিমাণ কমানোও আমাদের উদ্দেশ্য।’