অলিম্পিক শুরু হতে আর ৬ মাসও নেই। টোকিওতে অলিম্পিক হবে কি না সেই নিয়ে নানা প্রশ্ন ঘুরপাক খাচ্ছে। এমন অবস্থায়, ফ্লোরিডার প্রধান আর্থিক কর্মকর্তা জিমি প্যাট্রোনিস আন্তর্জাতিক অলিম্পিক কমিটিকে একটি চিঠি দিয়েছেন। সেই চিঠিতে তিনি জানিয়েছেন, অলিম্পিকের আয়োজন করতে পারলে খুশি হবে ফ্লোরিডা। জিমি প্যাট্রোনিস আন্তর্জাতিক অলিম্পিক কমিটির প্রধান টমাস বাখকে দেওয়া চিঠিতে বলেছেন, ‘‌আপনি ২০২১ সালের অলিম্পিক জাপানের টোকিও থেকে আমেরিকা যুক্তরাষ্ট্র এবং বিশেষত ফ্লোরিডায় স্থানান্তরের বিষয়ে ভাবতে পারেন।’‌
করোনা মহামারীর পর ফ্লোরিডা আবার অর্থনৈতিকভাবে ঘুরে দাঁড়ানোর জন্য স্পোর্টস ইভেন্ট আয়োজন করতে তৈরি। জিমি বলেছেন, ‘‌মিডিয়া রিপোর্ট অনুযায়ী টোকিও অলিম্পিক আয়োজন করার ব্যাপারে জাপানের নেতারা ব্যক্তিগতভাবে ভীষণ উদ্বিগ্ন। তাই আমার মনে হয়, ফ্লোরিডাকে আয়োজক হিসেবে বেছে নেওয়ার জন্য এখনও সময় রয়েছে।’‌ তাঁর কথাতেই পরিস্কার যে, জাপান অলিম্পিক আয়োজন করতে না চাইলে, অলিম্পিক আয়োজন করতে কিন্তু প্রস্তুত ফ্লোরিডা। জিমি বলেছেন, ‘‌যা কিছু সতর্কতা নেওয়া প্রয়োজন, তা নিয়ে এগিয়ে যাওয়া যাক।’‌
যদিও কয়েকদিন আগেই জাপানের প্রধানমন্ত্রী ইওশিহিদে সুগা সব জল্পনায় জল ঢেলে দিয়েছেন। তিনি পরিস্কার জানিয়ে দিয়েছেন, যে কোনও পরিস্থিতিতে টোকিও অলিম্পিক আয়োজন করবে জাপান সরকার। তাঁর কথায়, ‘‌আমি একটি নিরাপদ ও সুরক্ষিত টোকিও গেম উপলব্ধি করতে বদ্ধপরিকর।’‌