প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখোপাধ্যায়।

নিউজপোল ডেস্ক: এখনও গভীর কোমায় আচ্ছন্ন থাকলেও দেশের প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি প্রণব মুখোপাধ্যায়ের আগের চেয়ে শারীরিক অবস্থার কিছুটা উন্নতি হয়েছে। শনিবার একটি বিবৃতি দিয়ে এই কথা জানানো হয়েছে আর্মি রিসার্চ অ্যান্ড রেফারেল হাসপাতালে তরফে। ভারতরত্নের ফুসফুসের সংক্রমণের চিকিত্‍সা চলছে। তবে তাঁর রেনাল প্যারামিটারের কিছুটা উন্নতি হয়েছে বলে হাসপাতালে তরফে জানানো হয়েছে। এখনও ভেন্টিলেটর সাপোর্টেই আছেন প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি। তবে তাঁর শারীরিক অবস্থা হেমোডায়নামিক্যালি স্টেবল বলে জানিয়েছেন চিকিত্‍সকরা। কোনও রোগীর শারীরিক অবস্থা হেমোডায়নামিক্যালি স্টেবল কথার অর্থ, তাঁর শরীরে রক্ত সঞ্চালনের প্যারামিটার, অর্থাত্‍ রক্তচাপ, হার্ট এবং পালস রেট স্থিতিশীল এবং স্বাভাবিক। বিশেষজ্ঞ ডাক্তাররা প্রতিনিয়ত তাঁকে নজরদারিতে রাখছেন।

চিকিত্‍সকরা জানিয়েছেন যে ৮৪ বছরের প্রাক্তন রাষ্ট্রপতি ইনটেনসিভ কেয়ারে রয়েছেন এবং তাঁর ফুসফুসে সংক্রমণ ও রেনাল ডিসফাংশানের চিকিত্‍সা চলছে। এর আগে স্বাধীনতা দিবসে প্রণব-কন্যা শর্মিষ্ঠা মুখোপাধ্যায় গত বছরের স্বাধীনতা দিবসের স্মৃতিচারণ করে বাবাকে নিয়ে আবেগী একটি পোস্ট করেছিলেন। তিনি লেখেন, ‘শৈশবে বাবা আর কাকা মিলে আমাদের পৈতৃক গ্রামে এই দিনে জাতীয় পতাকা উত্তোলন করতেন। সেই সময় থেকে কোনও বছর স্বাধীনতা দিবস বাদ যায়নি যে, তিনি জাতীয় পতাকা উত্তোলন করেননি। গত বছর বাড়িতে সেলিব্রেশনের কিছু স্মৃতি শেয়ার করছি। সামনের বছরও তিনি এগুলো আবার করবেন এ বিষয়ে আমি নিশ্চিত। জয় হিন্দ।’

গত ১০ অগাস্ট ব্রেন সার্জারি হয় প্রণব মুখোপাধ্যায়ের। তারপর থেকেই গভীর কোমায় আচ্ছন্ন তিনি। মস্তিষ্কের একটা ক্লট সরাতে তাঁর ব্রেন সার্জারি করা হয়। সেদিনই সার্জারির আগে তাঁর করোনা পরীক্ষার ফলও পজিটিভ আসে। এর পর থেকেই ভারতরত্ন প্রণব মুখোপাধ্যায়কে নিয়ে দুশ্চিন্তা বাড়তে থাকে দেশবাসীর মনে। জানানো হয়, ফুসফুসে সংক্রমণের কারণেই প্রণব মুখোপাধ্যায়ের শারীরিক অবস্থার অবনতি হয়। গত সপ্তাহের বুধবার সকালে প্রাক্তন রাষ্ট্রপতির শারীরিক অবস্থা নিয়ে আশ্বস্ত করেছিলেন তাঁর ছেলে অভিজিৎ মুখোপাধ্যায়। টুইটে তিনি জানিয়েছিলেন, ‘আপনাদের শুভেচ্ছা এবং চিকিৎসকদের চেষ্টায় বাবা এখন স্থিতিশীল। ওঁর শারীরিক অবস্থাও (ভাইটাল প্যারামিটার্স) নিয়ন্ত্রিত রয়েছে। বাবার সুস্থতা কামনার জন্য প্রার্থনা করতে আবেদন করব সবাইকে।’