নিউজপোল ডেস্ক: প্যারিসের স্তাদে দে ফ্রান্সে শুক্রবার রাতে পেনাল্টি শুট আউটে ৬-৫ ব্যবধানে জিতে গেল টমাস টুখেলের দল। চলতি মরশুমে এটিপ্যারিস সেন্ট জের্মেনের তৃতীয় ট্রফি। ফরাসী লিগে মোট ৯ বার চ্যাম্পিয়ন হল পিএসজি।

প্রথমার্ধ শেষ হওয়ার কিছু আগে হঠাৎ করে এগিয়ে যাওয়ার সুযোগ পেয়েছিল পিএসজি। কিন্তু সেনেগালের মিডফিল্ডার ইদ্রিসা গেয়ির প্রায় ২৫ গজ দূর থেকে নেওয়া জোরালো শট শেষ মুহূর্তে এক হাত দিয়ে কোনোমতে ঠেকিয়ে দেয় লিওঁর গোলকিপার।

৭০তম মিনিটে পিএসজি শিবিরে পায়ের পেশিতে আঘাত পেয়ে মাঠ ছাড়েন লেইভিন কুরজাওয়া। মনে করা হচ্ছে, বেশ কিছুদিনের জন্য মাঠের বাইরে কাটাতে হতে পারে ফরাসি এই ডিফেন্ডারকে। আগে থেকেই বাইরে আছেন তারকা ফরোয়ার্ড কিলিয়ান এমবাপে। অতিরিক্ত সময়ের শুরুতে দুই দলই গোলের সুযোগ পেয়েছিল। আনহেল দি মারিয়ার নিচু শট লোপেজ রুখে দেয়,এরপর পাল্টা আক্রমণে উঠে আসে লিওঁ, আক্রমণের মুখে পড়ে পিএসজি শিবির কেঁপে ওঠে। তবে বের্টান্ড ত্রাওয়ের শট এক ডিফেন্ডারে প্রতিহত হয়।

অয়্যাডেড টাইমে একেবারে শেষ দিকে দি মারিয়াকে ফাউল করে সরাসরি লাল কার্ড দেখেন লিওঁর ব্রাজিলিয়ান ডিফেন্ডার রাফায়েল। পেনাল্টি শুট আউটে দুই দলের প্রথম পাঁচটি শটই জালে জড়িয়ে যায়। এরপর ‘সাডেন ডেথ’ এ লিওঁর ছয় নম্বর শট মিস করেন বুর্কিনা ফাসোর ফরোয়ার্ড বের্টান্ড ত্রাওরে। ফলে পাবলো সারাবিয়া গোল করলে ট্রফি নিশ্চিত হয়ে যায় পিএসজির। এই স্টেডিয়ামেই গত শুক্রবার সাঁত এতিয়েনকে ১-০ ব্যবধানে হারিয়ে ফরাসি কাপ চ্যাম্পিয়ন হয় পিএসজি।  পর্তুগালের লিসবনে আগামী ১২ অগাস্ট ইউরোপ সেরা প্রতিযোগিতার কোয়ার্টার-ফাইনালে আতালান্টার মুখোমুখি হবে টুখেলের দল।