নয়াদিল্লি: প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর পর প্রতিরক্ষামন্ত্রী রাজনাথ সিং৷ লাদাখের মাটি থেকে ফের কড়া বার্তা গেল চিনের কাছে৷ এর আগে কড়া বার্তা দিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী৷ এবার হুঁশিয়ারি দিলেন প্রতিরক্ষামন্ত্রী রাজনাথ সিং৷ কিন্তু কেউই চিনের নাম মুখে আনলেন৷ কিন্তু তাঁরা যা বললেন, তাতে এটাই স্পষ্ট যে আক্রমণের লক্ষ্য চিন৷

শুক্রবার লাদাখে যান প্রতিরক্ষামন্ত্রী রাজনাথ সিং৷ তিনি স্পষ্ট জানিয়েদেন যে পৃথিবীর কোনও শক্তিই ভারতের থেকে এক ইঞ্চি জমিও ছিনিয়ে নিতে পারবে না৷ তাঁর এই মন্তব্যের উদ্দেশ্য যে চিন, তা স্পষ্ট হয়েছে চিন-ভারত সাম্প্রতিক বিবাদ নিয়ে অন্যান্য বক্তব্য থেকে৷

প্রতিরক্ষামন্ত্রী এদিন লাদাখে দাঁড়িয়ে জানান যে সীমান্ত সংক্রান্ত সমস্যা মেটাতে আলোচনা চলছে৷ আলোচনার মাধ্যমে পুরো সমস্যা মিটে গেলে খুবই ভালো৷ কিন্তু আলোচনাতেই যে সমস্যা মিটবে এমন কোনও নিশ্চিয়তা নেই বলে এদিন জানিয়েছেন মোদী-মন্ত্রিসভার এই গুরুত্বপূর্ণ সদস্য৷ তখনই তিনি বলেন, ‘‘আমি এটুকু নিশ্চিত করতে পারি যে পৃথিবীর কোনও শক্তিই ভারতের এক ইঞ্চি জমিও ছিনিয়ে নিতে পারবে না৷’’

মে মাসের শুরুর দিকে লাদাখে চিনের সঙ্গে ভারতের সীমান্ত বিবাদ শুরু হয়েছে৷ জুন মাসের শুরুর দিকে যা চরমে পৌঁছায়৷ লাল ফৌজের সঙ্গে গোলমালের জেরে শহিদ হন ২০ জন ভারতীয় জওয়ান৷ এদিন প্রতিরক্ষামন্ত্রী শহিদ জওয়ানদের স্মরণে শ্রদ্ধাজ্ঞাপন করেন৷

এর আগে প্রতিরক্ষামন্ত্রীর লাদাখ সফরের কথা শোনা গিয়েছিল৷ কিন্তু শেষ মুহূর্তে তাঁর সেই সফর বাতিল হয়৷ পরিবর্তে সেদিন লাদাখে আচমকা হাজির হন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী৷ তিনি সেখানে দাঁড়িয়ে সেনার মনোবল বৃদ্ধি করার চেষ্টা করেন৷ নাম না করে চিনকে কড়া বার্তা দেন৷ আহত সেনা জওয়ানদের সঙ্গেও দেখা করেন তিনি৷