নিউজপোল ডেস্ক: ফুটবল, হকি, অ্যাথলেটিক্স সারা বিশ্বে যতটা জনপ্রিয়, ক্রিকেট তার ধারেকাছেও আসে না। মূলত সে কারণেই অলিম্পিক্সে স্থান পায় না এই খেলা। বিশ্ব ক্রিকেটের নিয়ামক সংস্থা আইসিসি অনেকদিন ধরেই চেষ্টা চালাচ্ছে যাতে অলিম্পিক গেমসে ক্রিকেটকে অন্তর্ভুক্ত করা যায়। সাম্প্রতিক রিপোর্ট বলছে, ২০২৮ অলিম্পিক্সে ব্যাট-বলের লড়াই দেখতে পাওয়ার জোর সম্ভাবনা তৈরি হয়েছে। তার একটা বড় কারণ ভারত।

দীর্ঘ টালবাহানার পর অবশেষে নাডা’র আওতায় এসেছে বিসিসিআই। জাতীয় ডোপ বিরোধী সংস্থার নজরদারির অন্তর্ভুক্ত হওয়ায় ক্রিকেটারদের নিষিদ্ধ ওষুধ এবং মাদক সেবনের বিষয়ে আরও কড়াকড়ি হবে। এই স্বচ্ছতাই ক্রিকেটকে অলিম্পিক্সের কাছাকাছি পৌঁছে দিচ্ছে বলে মন্তব্য করেছেন প্রাক্তন ইংরেজ ক্রিকেটার মাইক গ্যাটিং। শেন ওয়ার্নের ‘বল অব দ্য সেঞ্চুরি’র শিকার গ্যাটিং ইএসপিএন ক্রিকইনফো-কে দেওয়া সাক্ষাৎকারে জানান, সদ্যনিযুক্ত আইসিসির সিইও মনু সহনি’র সঙ্গে কথা হয়েছে তাঁর। মনু সম্প্রতি এমসিসি ক্রিকেট কমিটির সামনে বলেছেন ২০২৮ অলিম্পিক্সে ক্রিকেট অন্তর্ভুক্তির বিষয়ে বড় ধরনের অগ্রগতি হয়েছে। ভারতীয় ক্রিকেটাররা নাডা’র আওতায় আসায় আরও বেশি করে পালে হাওয়া লেগেছে।

গ্যাটিং আরও বলেছেন, অলিম্পিক্সের সময়সীমা দু’ সপ্তাহ হলে ক্রিকেট আয়োজনে সুবিধা। একমাস হয়ে গেলে সমস্যা হয়। প্রতি চার বছর অন্তর দু’ সপ্তাহের সূচি করা যেতেই পারে। আগামী ১৮ মাস খুব গুরুত্বপূর্ণ বলে জানিয়েছেন গ্যাটিং। এই সময়ের মধ্যে যা করার করতে হবে। ক্রিকেট একবার অলিম্পিক্সে ঢুকে পড়লে বিশ্বব্যাপী জনপ্রিয়তা লাভ করার পথে অনেকটাই এগিয়ে যাবে তা বলাই বাহুল্য। যত বেশি দেশ অংশগ্রহণ করবে তত জৌলুস বাড়বে এই খেলার।