মহারাষ্ট্রে দীর্ঘদিনের রাজনৈতিক অরাজকতার উত্তাপ এখনও থামেনি। একনাথ শিন্ডে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীর পদ গ্রহণ করার পরে তাঁর বিরুদ্ধে বড় পদক্ষেপ নিয়েছেন উদ্ধব ঠাকরে (Uddhav Thackeray) । দল বিরোধী কার্যকলাপে জড়িত থাকার জন্য শিবসেনার সমস্ত পদ থেকে একনাথ শিন্ডকে সরিয়ে দিয়েছেন তিনি।

উদ্ভব (Uddhav Thackeray) এক চিঠি দিয়ে জানিয়েছেন,‘দল বিরোধী কাজের’ জন্য তাঁকে সরিয়ে দেওয়া হয়েছে। সেই চিঠিতে মহারাষ্ট্রের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী জানিয়েছেন, শিন্ডে স্বেচ্ছায় দলের সদস্য পদও ছেড়ে দিয়েছেন। একনাথ শিন্ডের নামে একটি চিঠি জারি করার সময়, উদ্ধব ঠাকরে লিখেছেন সম্প্রতি দেখা গেছে যে আপনাকে দল বিরোধী কার্যকলাপে লিপ্ত হতে দেখা গেছে। সেই সঙ্গে চিঠিতে বলা হয়েছে, আপনি শিবসেনার সদস্যপদ ছেড়ে দিয়েছেন। তাই আপনার বিরুদ্ধে এই ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে। উদ্ধব ঠাকর বলেছিলেন যে শিবসেনার দলীয় প্রধান হওয়ার কারণে, আমি একনাথ শিন্ডেকে সমস্ত দলীয় পদ থেকে অব্যাহতি দেওয়ার জন্য এই অধিকার ব্যবহার করছি।

এদিকে এর আগে শিন্ডে শিবির সুপ্রিম কোর্টে নিজেদেরকে আসল শিবসৈনিক হিসাবে দাবি করেছে। এমনকি শরদ পাওয়ারের জাতীয়তাবাদী কংগ্রেস পার্টি (এনসিপি) এবং কংগ্রেসের সঙ্গে মিলে যে জোট সরকার তৈরি হয়েছিল মহারাষ্ট্রে তা আধপে উদ্ধবের পিতা তথা শিবসেনার প্রতিষ্ঠাতা বাল ঠাকরের হিন্দুত্বের আদর্শকে ম্লান করেছে। তাই তাঁরা এ জোটের তীব্র বিরোধিতা করছেন শুরু থেকে। এমনকী মুখ্যমন্ত্রীর আসনে বসার পর একেবারে বালাসাহেব ঠাকরের সঙ্গে একটি পুরনো ছবিও টুইটারে প্রোফাইল পিকচার করে ফেলেন একনাথ শিন্ডে। কিন্তু, বর্তমানে উদ্ধবের (Uddhav Thackeray) এ ‘পাল্টা আক্রমণের’ মোকাবিলা শিন্ডে কীভাবে করেন এখন সেটাই দেখার।

আরও পড়ুন:Malaysia Open: কোয়ার্টার ফাইনাল থেকে বিদায় সিন্ধু ও প্রণয়ের