(Travel) কাজের ফাঁকে ছোট্টো একটি অবসর পেলে মন যেন দু-দণ্ড শান্তি চায়। মনে হয় এমন কোনও জায়গা যদি থাকত যেখানে কোলাহল, চেঁচামিচি কিছু নেই। প্রকৃতির নানা শব্দই হতে পারে একমাত্র সঙ্গী। সমুদ্রের ঢেউয়ের গর্জন, পাখির কোলাহল, মন্দিরের ঘণ্টাধ্বনি এবং মন্ত্রের সুর শুনতে শুনতে মনে নেমে আসবে অপার শান্তি। আর সেসব যদি হয় বিদেশের মাটিতে তাহলে তো আর কোনো কথাই নেই। সেই কারণেই মনে হয় ভ্রমণপ্রেমীদের কাছে ইন্দোনেশিয়ার রাজধানী বালি এত প্রিয়। বিশেষ করে হানিমুন কাপলদের জন্য এই স্থান ভীষণ আকর্ষণীয়। এখানকার আনাচ কানাচে যেন রয়েছে মধুচন্দ্রিমার হাতছানি। অনেকেই মজা করে বলেন যে বালির পর্যটন সাজানোই হয়েছে হানিমুন কাপলদের কথা ভেবে।(Travel)

Travel: Karnataka tour has a touch of foreignness in the country
কর্ণাটক ট্যুরে দেশেই বিদেশের ছোঁয়া

কিন্তু তাই বলে তো আর সকলের পক্ষে যখন তখন বিদেশে পাড়ি দেওয়া সম্ভব নয়। আর চিন্তার কোনো কারণ নেই। বালির মতো মনোরম সমুদ্র সৈকতের খোঁজ রয়েছে আমাদের দেশেই। একটি দুটি নয়। মোট পাঁচটি সমুদ্র সৈকত টেক্কা দিতে পারে আন্তর্জাতিক ট্যুরিস্ট স্পট বালিকে।(Travel) নারকেল এবং তাল গাছের ঝারে ঘেরা নীল আকাশের নীচে নীল সমুদ্রের এই পাঁচ সৈকতের খবর খুব কম লোকেই রাখেন। তাই এখনও এই বিচগুলি বেশ নিরিবিলি। লাখ খানেক টাকা দিয়ে বালি না গিয়ে দক্ষিণ ভারতের কর্নাটকের এই সমুদ্র সৈকতগুলি থেকে ঘুরে আসুন। পকেট আর মন দুইই উৎফুল্ল হয়ে উউঠবে এই সমুদ্র সৈকত গুলি হল –

​দেববাগ বিচ, ​হুডে বিচ, ​মাট্টু বিচ, ​কুড়লি বিচ, ​কোডি বিচ।